প্রকাশিত :  ০৯:২১, ০১ আগষ্ট ২০২০

গৃহকর্মীকে নির্মমভাবে নির্যাতন; স্বামীসহ শাবি শিক্ষিকা আটক

গৃহকর্মীকে নির্মমভাবে নির্যাতন; স্বামীসহ শাবি শিক্ষিকা আটক

জনমত ডেস্ক : সিলেট শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের এক শিক্ষিকা ও তার স্বামী তাদের বাসায় থাকা গৃহকর্মীকে নির্যাতনের অভিযোগে আটক করেছে পুলিশ।

বৃহস্পতিবার (৩০ জুলাই) বিকেলে তাদের বাসা থেকে আটক করে কোতোয়ালি মডেল থানাপুলিশ।

অভিযুক্ত সাবিনা ইয়াসমিন শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের লোক প্রশাসন বিভাগের সহকারী অধ্যাপক। তার স্বামীর নাম সোহাগ। স্বামী-স্ত্রী দুজনেই শাবিপ্রবির গ্রাজুয়েট।

জানা গেছে, ১২ বছরের কিশোরী গৃহকর্মীকে গত দুই সপ্তাহ ধরে নানা অজুহাতে শারীরিক নির্যাতন করছেন সাবিনা ও সোহাগ। কয়েকদিন আগে লোহার জিআই পাইপ দিয়েও নির্মমভাবে মেরে তাকে আটকে রাখেন বাসায়। বৃহস্পতিবার দুপুরে ঘরের দরজা খোলা পেয়ে ওই গৃহকর্মী তাদের বাসা থেকে পালিয়ে আসে এবং পাশের বাসার আরেক গৃহকর্মীর সহযোগিতায় ৯৯৯ এ কল দিয়ে পুলিশকে নির্যাতনের কথা জানায়।

পরে পুলিশ দ্রুত গিয়ে সিলেট আখালিয়া সুরমা আবাসিক এলাকার রেনেসা ১১ নম্বর বাসা থেকে ওই দম্পতিকে আটক করে সিলেট কোতোয়ালি থানায় নিয়ে আসে।

আটকের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন মহানগর পুলিশের উপ পুলিশ কমিশনার জ্যোতির্ময় সরকার।

তিনি জানান, গৃহকর্মী নির্যাতনের অভিযোগে শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের পাবলিক এডমিনিস্ট্রেশন বিভাগের সহকারী অধ্যাপক সাবিনা বেগম ও তার স্বামীকে পুলিশ আটক করেছে। বর্তমানে (রাত সাড়ে ১১টায় এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত) তারা পুলিশ হেফাজতে রয়েছেন।

মামলার বিষয়ে জানতে চাইলে তিনি বলেন, গৃহকর্মীর অভিভাবকদের খবর দেয়া হয়েছে। তারা আসার পর সিদ্ধান্ত হবে।

এদিকে, নির্যাতিতা গৃহকর্মীকে ওসমানী হাসপাতালে চিকিৎসা শেষে পুলিশের ভিকটিম সার্ভিস সেন্টারে রাখা হয়েছে।


Leave Your Comments


শিক্ষা এর আরও খবর