প্রকাশিত :  ১২:৫২, ০৪ নভেম্বর ২০২০

যুক্তরাষ্ট্রের ইতিহাসে প্রথমবারের মতো তৃতীয় লিঙ্গের সিনেটর সারাহ

যুক্তরাষ্ট্রের ইতিহাসে প্রথমবারের মতো তৃতীয় লিঙ্গের সিনেটর সারাহ

জনমত ডেস্ক : যুক্তরাষ্ট্রের ইতিহাসে প্রথমবারের মতো তৃতীয় লিঙ্গের  কোনও প্রার্থী নির্বাচিত হয়েছেন। বিজয়ী ওই ডেমোক্র্যাটিক প্রার্থীর নাম সারাহ ম্যাকব্রাইড। ডেলাওয়ারের আসন থেকে রিপাবলিকান প্রার্থী স্টিভ ওয়াশিংটনকে হারিয়ে প্রথম সিনেট ডিস্ট্রিক্টে নির্বাচিত হন ট্রান্সজেন্ডার সারাহ। 

বার্তা সংস্থা সিএনএন-এর এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, সারাহ হিউম্যান রাইটস ক্যাম্পেইনের জাতীয় প্রেস সেক্রেটারি। তার এই জয়কে যুক্তরাষ্ট্রের নির্বাচনে ইতিহাস হয়ে থাকবে। তিনি এখন দেশটির সর্বোচ্চ সম্মানধারী ট্রান্সজেন্ডার হতে চলেছেন। 

গত ৪৪ বছর ধরে ওই আসনটি ধরে রেখেছিলেন তুখোড় ডেমোক্র্যাট নেতা হ্যারিস ম্যানডোয়েল। এবার নিজে থেকে সরে গিয়ে সারাহ ম্যাকব্রাইডকে সুযোগ করে দেন হ্যারিস। ডেলাওয়ারের প্রথম সিনেট ডিস্ট্রিক্ট এলাকায় পড়েছে বেলেফোন্তে, ক্লেমন্ট ও অঙ্গরাজ্যের বৃহত্তম শহর উইলমিংটনের কিছু অংশ। 

২০১৬ সালে ডেমোক্র্যাটিক ন্যাশনাল কনভেনশনেও ইতিহাস গড়েছিলেন সারাহ। প্রথম ঘোষিত কোনও রূপান্তরকামী হিসেবে যুক্তরাষ্ট্রের বৃহৎ কোনও রাজনৈতিক দলের সম্মেলনে কথা বলার সুযোগ পেয়েছিলেন তিনি। 

বর্তমানে যুক্তরাষ্ট্রের প্রাদেশিক সরকারের ঘোষিত ট্রান্সজেন্ডার আইনপ্রণেতা রয়েছেন ৪ জন। তারা হলেন- ভার্জিনিয়ার দেল ড্যানিকা রোয়েম, কলোরাডোর ব্রিয়ানা টিটোনে, নিউ হ্যাম্পশায়ারের লিসা বাঙ্কের ও গ্যারি ক্যানন।

এদিকে সারাহ’র এই বিজয়ে উচ্ছ্বাস প্রকাশ করে দেশটির হিউমেন রাইটস ক্যাম্পেইনের প্রেসিডেন্ট আলফনসো ডেভিড এক বিবৃতিতে বলেছেন, ‘আজ রাতে সারাহ কেবল নিজের জন্য ইতিহাস গড়েননি। আমাদের পুরো সম্প্রদায়ের জন্য ইতিহাস গড়েছেন। এই বিজয় তার ক্যারিয়ারের জন্য বড় প্রাপ্তি। মানুষের যোগ্যতা লৈঙ্গিক পরিচয়ের ঊর্ধ্বে, সারাহ এটি প্রমাণ করেছেন।’


Leave Your Comments


নির্বাচন এর আরও খবর