প্রকাশিত :  ১৩:১১, ১১ জানুয়ারী ২০২১
সর্বশেষ আপডেট: ১৩:১৬, ১১ জানুয়ারী ২০২১

২৫ জানুয়ারির মধ্যে ভ্যাকসিন আসছে : স্বাস্থ্য অধিদপ্তর

২৫ জানুয়ারির মধ্যে ভ্যাকসিন আসছে : স্বাস্থ্য অধিদপ্তর

জনমত ডেস্ক : আগামী ২৫ জানুয়ারির মধ্যে ভারতের সেরাম ইনস্টিটিউটে উৎপাদিত অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার তৈরি করোনা ভাইরাসের টিকা দেশে আসবে। আর সব কিছু ঠিক থাকলে ফেব্রুয়ারির প্রথম সপ্তাহ থেকে করোনার টিকা প্রয়োগ করা হবে বলে স্বাস্থ্য অধিদফতর জানিয়েছে। আর এ লক্ষ্যে ভ্যাকসিন নিতে আগামী ২৬ জানুয়ারি থেকে নিবন্ধন শুরু হবে। 

সোমবার (১১ জানুয়ারি) এক সংবাদ সম্মেলনে স্বাস্থ্য অধিদফতরের মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. এবিএম খুরশীদ আলম বলেন, আগামী ২১ থেকে ২৫ জানুয়ারির মধ্যে দেশে টিকা আসবে বলে বেক্সিমকো আমাদের জানিয়েছে। টিকা আসার দুই দিন বেক্সিমকোর ওয়্যারহাউজে থাকবে। সেখান থেকে স্বাস্থ্য অধিদফতরের তালিকা অনুযায়ী দেশের বিভিন্ন জেলায় টিকা পাঠানো হবে। 

এ সময় অধিদফতরের এমএনসিঅ্যান্ডএএইচ অপারেশনাল প্ল্যানের লাইন ডিরেক্টর ডা. মো. শামসুল হক বলেন, ২৭ জানুয়ারি স্বাস্থ্য অধিদফতরের কাছে টিকা পৌঁছবে। এরপর কয়েকটি মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতারের চিকিৎসক ও স্বেচ্ছাসেবকদের টিকা দেয়া হবে। এর এক সপ্তাহ পর মাঠ পর্যায়ে টিকা প্রয়োগ শুরু হবে। 

গত নভেম্বরে ভারতের সেরাম ইনস্টিটিউটের সঙ্গে অক্সফোর্ডের তিন কোটি টিকা আনতে চুক্তি করা হয়। সেই চুক্তি অনুযায়ী প্রথশ চালানে দেশে ৫০ লাখ ডোজ টিকা পাওয়ার কথা বাংলাদেশের। 

এবিএম খুরশীদ আলম বলেন, অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রোজেনেকার নতুন তথ্য অনুযায়ী, প্রথম ডোজ দেয়ার দুই মাস পর দ্বিতীয় ডোজ দেয়া যাবে। সে কারণে প্রথম চালানে পাওয়ার টিকা প্রথম মাসেই একসঙ্গে ৫০ লাখ মানুষকে দেয়া হবে। 

এর আগে আমাদের জানানো হয়েছিল, প্রথম ডোজ দেওয়ার ২৮ দিন পর দ্বিতীয় ডোজ দিতে হবে।  সে হিসেবে প্রথমে ২৫ লাখ মানুষকে টিকা দেওয়ার পরিকল্পনা ছিল।  কিন্তু গতকাল নতুন নিয়ম জানার পর আমরা পরিকল্পনায় পরিবর্তন এনেছি।  প্রথম যে ৫০ লাখ টিকা আসবে তা দিয়ে দেওয়া হবে।  দুই মাসের মধ্যে আরও টিকা চলে আসবে।

অন্যদের মধ্যে স্বাস্থ্য অধিদফতরের অতিরিক্ত মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. নাসিমা সুলতানা ও অধ্যাপক ডা. মীরজাদী সেব্রিনা ফ্লোরা সংবাদ সম্মেলনে বক্তব্য দেন।



Leave Your Comments


বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি এর আরও খবর