প্রকাশিত :  ০৭:০৫, ২৯ মার্চ ২০২১
সর্বশেষ আপডেট: ১০:০০, ২৯ মার্চ ২০২১

আ'লীগ আমাদের ভাই: সুনামগঞ্জে হেফাজতের আমির

আ'লীগ আমাদের ভাই: সুনামগঞ্জে হেফাজতের আমির

জনমত ডেস্ক: আওয়ামী লীগ তাদের ভাই বলে মন্তব্য করেছেন সুনামগঞ্জে হেফাজতে ইসলামের আমির আব্দুল বছির। সংগঠনটির ডাকা রোববারের হরতাল পালন এবং হাটহাজারীতে পুলিশের গুলিতে নিহত ব্যক্তিদের হত্যার বিচার দাবিতে সুনামগঞ্জে এক বিক্ষোভ সমাবেশে তিনি এ মন্তব্য করেন।

শনিবার বিকেলে শহরের জামেয়া ইসলামিয়া দারুল উলুম মাদানিয়া মাদ্রাসা থেকে বিক্ষোভ মিছিল শুরু করে হেফাজতের নেতা-কর্মীরা। মিছিলটি পুরাতন বাসস্টেশন এলাকায় পৌঁছালে পুলিশের বাধায় সেখানেই প্রতিবাদ সমাবেশ করে তারা।

সমাবেশে সংগঠনের জেলা আমির আব্দুল বছির বলেন, ‘গতকালের ঘটনায় আমাদের মাদ্রাসার ছাত্ররা উত্তেজিত ছিল। আমি তাড়াতাড়ি মাদ্রাসায় এসে তাদের নিয়ন্ত্রণ করেছি। পুলিশ সুপার, থানার ওসির সঙ্গে আলোচনা করে তাদের আশ্বস্ত করেছি; আমরা শান্তিপূর্ণ কর্মসূচি পালন করব।

‘আজকে তওহিদী জনতা ও আমার ছাত্রদের হাতে লাঠি ছিল। আমি বলেছি, লাঠি কার স্বার্থে? প্রশাসন, পুলিশ আমাদের ভাই, জনগণ আমাদের ভাই, আওয়ামী লীগ আমাদের ভাই। আমরাও আওয়ামী লীগের সাথে ছিলাম, যুদ্ধ করেছি, বাংলাদেশের পক্ষে আমরা ভূমিকা রেখেছি। সুতরাং লাঠির প্রয়োজন নেই। যেদিন লাঠির প্রয়োজন হবে, সেদিন লাঠি নিয়ে আসবেন।’

তিনি আরও বলেন, ‘আমরা সরকারের বিরুদ্ধে নয়, প্রধানমন্ত্রীর বিরুদ্ধে নয়, বঙ্গবন্ধুর বিরুদ্ধে নয়। শুধু মোদির বিরুদ্ধে আমাদের আন্দোলন।’

রোববারের হরতালকে ইসলামের দাবি আদায়ের হরতাল দাবি করে পরিবহন মালিক সমিতিকে গাড়ি বন্ধ রাখার আহ্বানও জানান তিনি।

সুনামগঞ্জ জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ব্যারিস্টার এম এনামুল কবির ইমন অবশ্য মনে করেন হেফাজত নেতা যে দাবি করেছেন, তাদের কাজে তা প্রকাশ পাচ্ছে না।

তিনি বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রী তো হেফাজতের সাথে বসে ওনাদের মাস্টার্সের স্বীকৃতি দিয়েছেন। কিন্তু বিশৃঙ্খলা তৈরি করে বিভিন্ন ধরনের প্রোগ্রাম করবেন, উসকানিমূলক কাজ করবেন, আবার বলবেন বর্তমান সরকার আমাদের আপনজন। সেটা আসলে ওনাদের কার্যকলাপের মধ্যে বহিঃপ্রকাশ হচ্ছে বলে আমি মনে করি না।’

এদিকে হেফাজতের মিছিলকে কেন্দ্র করে সুনামগঞ্জে ছিল কড়া নিরাপত্তা। শহরের গুরুত্বপূর্ণ স্থানে পুলিশের পাশাপাশি ছিল র‍্যাবের টহল।

সুনামগঞ্জের পুলিশ সুপার মিজানুর রহমান বলেন, ‘শান্তিপূর্ণ কর্মসূচিতে আমাদের আপত্তি নেই। তবে যেকোনো ধরনের বিশৃঙ্খলা এড়াতে এবং সাধারণ মানুষ নিরাপদ চলাচলের জন্য নিরাপত্তা জোরদার করা হয়েছে।’



Leave Your Comments


সিলেটের খবর এর আরও খবর