প্রকাশিত :  ০৮:২২, ১৪ মে ২০২১

বড়লেখা শহরে ‘পাগলা’ কুকুর আতঙ্ক, কামড়ে আহত ৫০

বড়লেখা শহরে ‘পাগলা’ কুকুর আতঙ্ক, কামড়ে আহত ৫০

জনমত ডেস্ক: মৌলভীবাজারের বড়লেখা পৌর শহরের হাজীগঞ্জ বাজারে ‘পাগলা’ কুকুরের কামড়ে প্রায় ৫০ জন আহত হয়েছেন। আহতদের মধ্যে ৩৩ জন বড়লেখা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসা নিয়েছেন। অন্যরা স্থানীয়ভাবে চিকিৎসা গ্রহণ করেছেন।

বৃহস্পতিবার (১৩ মে) সন্ধ্যা ৭টা থেকে রাত ১০টা পর্যন্ত কুকুরের কামড়ে আহতের ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় শহরের হাজীগঞ্জ বাজারে ঈদের কেনাকাটা করতে আসা লোকজনের মধ্যে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে।

খবর পেয়ে পৌরসভার লোকজন স্থানীয়দের সহায়তায় ‘পাগলা’ কুকুরটি মেরে ফেলে।

বড়লেখা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসা নেওয়া ব্যক্তিরা হলেন সামির উদ্দিন, ঝন্টু দাস, আব্দুর রব, রজত দত্ত, আমিনুল ইসলাম, সাহেদ আহমদ, আবেদ মিয়া, লোকমান হেকিম, মামুন আমিন, আং আলিম, সায়েম আহমদ, জাহাঙ্গীর, বেলাল আহমদ, মো. আলী, নাইম, মইনুল ইসলাম, আলা উদ্দিন, তোফায়েল আহমদ, আয়শা বেগম, বাক্কার আলী, ইব্রাহিম আলী, সায়দুল, তানভীর, আবুল কালাম, জাহিদ আহমদ, কামিল আহমদ, কবির উদ্দিন, সেলিম, কালা উদ্দিন, নবাব মিয়া, মিল্লাদ হোসেন, সাজু আহমদ, আং রহমান। অন্যদের পরিচয় জানা যায়নি। তারা সকলেই হাজীগঞ্জ বাজার ও আশপাশের গলিতে কুকুরের কামড়ে আহত হন।

বড়লেখা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের জরুরী বিভাগের কর্তব্যরত উপ সহকারী কমিউনিটি মেডিকেল অফিসার প্রশান্ত কুমার পাল রাত বৃহস্পতিবার (১৩ মে) রাত পৌনে ১২টায় বলেন, ‘রাত ৭.৫২ মিনিটে কুকুরের কামড়ে আহত প্রথম ব্যক্তি চিকিৎসা নেন। এরপর থেকে রাত সাড়ে ১১টা পর্যন্ত মোট ৩৩ জন হাসপাতালের জরুরী বিভাগে চিকিৎসা নিয়েছেন।’

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় একটি ‘পাগলা’ কুকুর আচমকা পৌর শহরের হাজীগঞ্জ বাজারে পথচারীদের কামড়াতে শুরু করে। এতে বাজারে ঈদের কেনাকাটা করতে আসা লোকজনের মধ্যে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে।

বড়লেখা পৌরসভার প্যানেল মেয়র (২) রেহান পারভেজ রিপন বলেন, ‘পাগলা কুকুরটি প্রায় ৫০ জন মানুষকে কামড়িয়েছে। ঈদের বাজার। মানুষের মধ্যে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে। খবর পেয়ে পৌরসভার লোকজন ঘটানাস্থলে যায়। পরে স্থানীয়দের সহায়তায় গিয়ে কুকুরটিকে মেরে মাটিতে পুতে ফেলা হয়।




Leave Your Comments


সিলেটের খবর এর আরও খবর