৯ ফেব্রুয়ারি মুক্তি পাচ্ছে জয়া আহসানের ‘পেয়ারার সুবাস'

প্রকাশিত :  ০৮:০৬, ০৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪
সর্বশেষ আপডেট: ০৮:২১, ০৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪

৯ ফেব্রুয়ারি মুক্তি পাচ্ছে জয়া আহসানের ‘পেয়ারার সুবাস'

নানা জটিলতা কাটিয়ে আগামী ৯ ফেব্রুয়ারি সারা দেশে মুক্তি পাবে জয়া আহসান অভিনীত ‘পেয়ারার সুবাস’ সিনেমাটি। 

প্রযোজক শাহরিয়ার শাকিল তথ্যটি নিশ্চিত জানান, খুব শিগগির সিনেমাটির প্রচারণা শুরু করবেন। জয়ার সিনেমাটি নিয়ে তাঁরা আগ্রহী। সাত বছর পর জটিলতা কাটিয়ে গত বছরের নভেম্বরে সেন্সর সার্টিফিকেট পায় সিনেমাটি।

জয়া আহসানকে এখন বাংলাদেশের প্রেক্ষাগৃহে পাওয়াই যেন কঠিন হয়ে গেছে। একের পর এক সিনেমা নিয়ে বিদেশের প্রেক্ষাগৃহ ও ওটিটিতে দাপিয়ে বেড়ালেও দেশের প্রেক্ষাগৃহে খুব একটা দেখা যাচ্ছে না দুই বাংলার জনপ্রিয় এই অভিনেত্রীকে।

সর্বশেষ এই অভিনেত্রীকে দেখা গিয়েছিল ‘বিউটি সার্কাস’ সিনেমায়। নামভূমিকার পর এবার ব্যতিক্রম চরিত্র দিয়ে দেশের দর্শকদের সামনে ফিরছেন এই অভিনেত্রী।

২০১৬ সালে ‘পেয়ারার সুবাস’-এর শুটিং শুরু হয়েছিল। এরপর কয়েক দফায় শুটিং পিছিয়ে, নানা জটিলতা পেরিয়ে ২০২০ সালে এর চিত্রায়ণ শেষ হয়। পরে পোস্ট প্রোডাকশনের কাজ শেষ হতে লেগে যায় আরও তিন বছর। সিনেমাটি ঘিরে আসে নতুন খবর। গত বছর ৪৫তম মস্কো আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসবে প্রিমিয়ার হয়েছে বাংলাদেশের সিনেমা ‘পেয়ারার সুবাস’।

 অনুদানের এই সিনেমায় জয়া আহসান ছাড়াও অভিনয় করেছেন তারিক আনাম খান, আহমেদ রুবেল, সুষমা সরকার, নূর ইমরান মিঠু, মাহমুদ আলম প্রমুখ।

Leave Your Comments


স্বামী রকিবের সাথে ভিডিও দিয়ে যা বললেন মাহি

প্রকাশিত :  ০৯:৩৪, ০৩ মার্চ ২০২৪

বেশ কিছুদিন ধরেই আলোচনায় রয়েছেন চিত্রনায়িকা মাহিয়া মাহি ও তার স্বামী রকিব সরকার। গত ১৬ ফেব্রুয়ারি হঠাৎ সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে বিচ্ছেদের ঘোষণা দিয়ে বসেন ঢাকাই সিনেমার আলোচিত চিত্রনায়িকা মাহিয়া মাহি। তবে স্বামী রকিব সরকারের সঙ্গে সংসার ভাঙার খবর জানালেও কারণ স্পষ্ট করেননি এ নায়িকা। এরপর স্বামীর পদবিও মুছে ফেলেন তিনি। বর্তমানে ছেলেকে নিয়ে আলাদাই থাকছেন এই নায়িকা।  

তবে বিচ্ছেদের ঘোষণা দিলেও স্বামীর প্রতি সম্মান আর ভালোবাসা যেন একই রয়ে গেছে মাহির। সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে মাঝেমধ্যে ঢুঁ মারলেই তার চিহ্ন পাওয়া যায়। আবার অন্যদিকে একাকিত্বে ভুগছেন বলেও প্রতিনিয়ত ফেসবুকে জানান দেন এই নায়িকা।

রোববার (৩ মার্চ) নিজের ফেসবুকে স্বামীর সঙ্গে একটি ভিডিও শেয়ার করেছেন মাহি। ক্যাপশনে নায়িকা লিখেছেন— ‘যদিও এটি আমাদের মধ্যে শেষ হয়ে গেছে, এবং আমি তোমাকে আমার জীবনে ফিরে পেতে চাই না, এই ভালোবাসা আমাদের ইতিহাসের অংশ হয়ে যাবে। মৃত্যুর আগ পর্যন্ত স্মৃতি হয়ে থাকবে।’

আগের মতো এখন চলচ্চিত্রে নিয়মিত নন মাহি। রাজনীতিতেও নিজের শক্ত অবস্থান গড়তে পারলেন না। একদিকে দ্বিতীয় সংসারও ভাঙল, অন্যদিকে অভিনেত্রীর ছেলের গায়ের রং নিয়েও রয়েছে নানান সমালোচনা। সব মিলিয়ে বলা যায়, বিষণ্নতায় ভুগছেন মাহি।

প্রসঙ্গত, ২০১৬ সালের ২৪ মে সিলেটের ব্যবসায়ী পারভেজ মাহমুদ অপুকে বিয়ে করেছিলেন মাহি। এর কয়েক বছর পরেই ২০২০ সালে মে মাসে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে দেওয়া এক পোস্টে পারভেজ মাহমুদ অপুর সঙ্গে বিচ্ছেদের কথা জানান তিনি। পরে ২০২১ সালে রাজনীতিবিদ ও ব্যবসায়ী কামরুজ্জামান সরকার রকিবকে বিয়ে করেন মাহিয়া মাহি।

img