img

ইস্টবোর্ন এর সাবেক ডেপুটি মেয়র হারুন মিয়ার সাফল্য উদযাপন

প্রকাশিত :  ১৪:৫৫, ১৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪

ইস্টবোর্ন এর সাবেক ডেপুটি মেয়র হারুন মিয়ার সাফল্য উদযাপন

ইংল্যান্ডের ইষ্টবোর্ন বারার সাবেক কাউন্সিলার ও ডেপুটি মেয়র হারুন মিয়া কমিউনিটির বিভিন্ন কাজে অবদানের জন্য সম্প্রতি ‘অনারারী ওল্ডারম্যান’ সম্মানে ভুষিত হয়েছেন। 

ইষ্টবোর্ন বারার দীর্ঘকালীন বাসিন্দা ও ব্যবসায়ী হারুন মিয়া বাংলাদেশি কমিউনিটি ছাড়াও মূলধারার কমিউনিটির নানা সেবামূলক কর্মকান্ডের সাথে জড়িত। 


তাঁর সম্মান প্রাপ্তি উপলক্ষে গত ১৩ ফেব্রুয়ারী মঙ্গলবার তার পরিবার, বন্ধুবান্ধব ও স্থানীয় কমিউনিটির উদ্যোগে সেন্ট ল্যুক প্যারিশ চার্চ—এ এক মিলন মেলার আয়োজন করা হয়। 

অনুষ্ঠানে হারুন মিয়া আবেগাপ্লুত হয়ে বলেন, আমি কমিউনিটির সেবায় নিজেকে নিবেদিত করতে পেরে গর্বিত মনে করছি। এই অনারারী ওল্ডারম্যান সম্মান প্রাপ্তি আমার নয়, এটি কমিউনিটির। তিনি সবাইকে তার জন্য দোয়া করার অনুরোধ জানান।


হারুন মিয়া ইষ্টবোর্ন এলাকায় অতি পরিচিত মুখ। প্রায় চার দশক ধরে তিনি সামাজিক কর্মকান্ডসহ স্থানীয় রাজনীতির সাথে সম্পৃক্ত রয়েছেন। একজন নাট্যকার, নাট্য নির্দেশক, অভিনেতা, সঙ্গীত শিল্পী ও শিক্ষক হারুন মিয়া এক মেয়ে ও ছেলের জনক। স্ত্রী রাজিয়া মিয়া সহ অনেক আত্মীয় স্বজন নিয়ে তিনি ইষ্টবোর্ণে বসবাস করছেন।

কমিউনিটি এর আরও খবর

img

সাংবাদিক তৌহিদুল করিম মুজাহিদের বাবা সাবেক পুলিশ সুপার মোজাম্মেল হোসেনের মৃত্যুতে ক্লাব নেতৃবৃন্দের শোক গ্রেপ্তার

প্রকাশিত :  ১৯:২২, ১১ এপ্রিল ২০২৪

 লন্ডন বাংলা প্রেস ক্লাবের সদস্য  ইসলাম চ্যানেল বাংলার হেড অব প্রোডাকশন এবং চ্যানেল এস এর সাবেক হেড অব চ্যারিটি তৌহিদুল করিম মুজাহিদের পিতা এডভোকেট মোজাম্মেল হোসেন এর মৃত্যুতে লণ্ডন বাংলা প্রেস ক্লাবের  নেতৃবৃন্দ গভীর শোক প্রকাশ করেছেন। ক্লাব সভাপতি মোহাম্মদ জুবায়ের, সাধারণ সম্পাদক তাইসির মাহমুদ ও কোষাধ্যক্ষ সালেহ আহমেদ এক শোকবার্তায় মরহুমের শোকসন্তপ্ত পরিবারের প্রতি গভীর সহানুভূতি ও সমবেদনা জ্ঞাপন করেন । নেতৃবৃন্দ মরহুমের রুহের মাগফিরাত কামনার পাশাপাশি তাঁর স্বজনদের ধৈর্য্য ধারণের শক্তি দানের জন্য মহান সৃষ্টিকর্তার কাছে দোয়া করেন।

উল্লেখ্য, এডভোকেট মোজাম্মেল হোসেন ৮ এপ্রিল, বাংলাদেশ সময় সোমবার দুপুর ২টায় চিকিৎসাধীন অবস্থায় ইন্তেকাল করেন । ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্নাহ ইলাইহি রাজিউন। মৃত্যুকালে তাঁর বয়স হয়েছিলো ৮৪ বছর। তিনি ৬ ছেলে ও ৫ মেয়ে, নাতি নাতনি, আত্মীয়-স্বজন ও বহু গুণগ্রাহী রেখে গেছেন। 

তিনি তার কর্মজীবনে একজন সৎ ও নিষ্ঠাবান পুলিশ কর্মকর্তা, পুলিশ সুপার  হিসেবে সমাদৃত ছিলেন। ২০০২ সালে অবসর গ্রহণের পর থেকে তিনি ঢাকা বারের সদস্য হিসেবে আইন পেশায় নিয়োজিত ছিলেন।

বাদ আছর ঢাকার মিরপুর রূপনগর আবাসিক জামে মসজিদে মরহুমের প্রথম নামাজে জানাজা অনুষ্ঠিত হয়। মঙ্গলবার বাদ ফজর ঝিনাইদহ আলিয়া মাদ্রাসা মাঠে ২য় নামাজে জানাজা এবং গ্রামের বাড়ি গবরায় সকাল ৯ টায় ৩য় নামাজে জানাজা শেষে পারিবারিক কবরস্থানে দাফন করা হয়।

তৌহিদুল করিম মুজাহিদের  তাঁর বাবার রুহেন মাগফেরাতের জন্য সকলের কাছে দোয়া চেয়েছেন। 


কমিউনিটি এর আরও খবর