img

ব্রিটেনে ৪০ লাখ স্মার্ট মিটার থেকে আসছে গ্যাস-বিদ্যুতের ভুতুড়ে বিল!

প্রকাশিত :  ১০:১৬, ০১ এপ্রিল ২০২৪

ব্রিটেনে ৪০ লাখ স্মার্ট মিটার থেকে আসছে গ্যাস-বিদ্যুতের ভুতুড়ে বিল!

ইংল্যান্ড, ওয়েলস এবং স্কটল্যান্ডের প্রায় ৪০ লাখ মিটার কাজ করছে না সঠিকভাবে। নির্ভুল বিল পাঠানোর কথা স্মার্ট মিটারের, কিন্তু এর পরিবর্তে আনুমানিক বিল পাঠাচ্ছে এসব মিটার।

স্মার্ট মিটার যদি ঠিকভাবে কাজ না করে তাহলে এর প্রভাব পড়ে গ্রাহকের পকেটে। অর্থাৎ কেউ বেশী বিল দিতে পারেন, আর কেউ কম বিল দিতে পারেন। 

কেবল বাসাবাড়িতে নয়, ব্যবসা প্রতিষ্ঠানেও একই সমস্যা হচ্ছে। সাউথহ্যাম্পটনে একটি স্পোর্ট বার পরিচালনা করেন লিওন। কিন্তু দুই বছর আগে এই ব্যবসা খোলার পর থেকে তাঁর মিটার থেকে ব্যবহারের চেয়ে বেশী মিটার রিডিং যাচ্ছে সরবরাহকারী প্রতিষ্ঠানে। আড়াই শ হাজার পাউন্ডের বিদ্যুৎ বিল এসেছে, যা এই কোম্পানি ব্যবহারই করেনি।

জানা গেছে, ২০২০ সালে লীওনের স্মার্ট মিটার যখন লাগানো হয় তখন এই স্থানে যে ব্যবসা প্রতিষ্ঠান ছিল সেখানে অনেক বেশী বিদ্যুতের ব্যবহার হতো। তবে নতুন করে সেটিংস ঠিক করার পর এখন সঠিক হিসাবে বিল আসছে।

ভোক্তা অধিকার নিয়ে যেসব চ্যারিটি কাজ করে তাঁরা জালানি সরবরাহকারী প্রতিষ্ঠানের সাথে নিয়মিত যোগাযোগ করার পরামর্শ দিচ্ছে।

ডিপার্টমেন্ট ফর এনার্জি বলেছে, অধিকাংশ স্মার্ট এনার্জি সঠিকভাবে কাজ করছে। তবে কিছু সংখ্যক সরবরাহকারী প্রতিষ্ঠানের পক্ষ থেকে ভুল বিল আসার খবর জানার পর বোঝা যাচ্ছে, ক্রমবর্ধমান সংখ্যক স্মার্ট মিটার সঠিকভাবে কাজ করছে না।

জালানি বিষয়ক নিয়ন্ত্রক সংস্থা অফজেম এবং ট্রেইড এসোসিয়েশন ইউকে এনার্জি উভয়ে এখন বলছে, এনারজি সরবরাহকারী প্রতিষ্ঠানগুলকেই এখন দ্রুত এই ভুল বিলের সমস্যার দিকে নজর দিতে হবে এবং তা সমাধান করতে হবে। সূত্র: বিবিসি


যুক্তরাজ্য এর আরও খবর

ইংলিশ চ্যানেলে নৌকা ডুবে শিশুসহ নিহত ৫ | JANOMOT | জনমত

img

নিজ আসন হারানোর শঙ্কায় ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী

প্রকাশিত :  ০৬:৩৮, ২০ জুন ২০২৪

এবছরের নির্বাচনে পরাজিত হয়ে পার্লামেন্টে নিজ আসন হারাতে পারেন ব্রিটেনের প্রধানমন্ত্রী ঋষি সুনাক। সাভান্তা জনমত জরিপের পর এমন পূর্বাভাস পাওয়া যাচ্ছে। জরিপের ফল প্রকাশ করেছে ব্রিটিশ গণমাধ্যম দ্য টেলিগ্রাফ। 

গত ৭ জুন থেকে ১৮ জুনের মধ্যে প্রায় ১৮ হাজার মানুষের ওপর এই জরিপ পরিচালনা করা হয়।

জরিপের ফলে দেখা গেছে, নির্বাচনে সুনাকের কনজারভেটিভ দল ব্রিটিশ পার্লামেন্টের ৬৫০ সদস্যের নিম্নকক্ষ হাউজ অব কমন্সে মাত্র ৫৩টি আসন পাওয়ার পথে রয়েছে। যেখানে বিরোধীদল লেবার পার্টি পেতে পারে ৫১৬টি আসন।

সাভান্তা পরিচালিত জনমত জরিপে বলা হচ্ছে, প্রধানমন্ত্রী ঋষি সুনাক ইংল্যান্ডের উত্তরাঞ্চলে তার নর্থ ইয়র্কশায়ার রিচমন্ড আসনে লেবার দলের কাছে পরাজিত হতে পারেন। এমন হলে সুনাকই হবেন প্রথম ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী যিনি নিজ আসন হারাবেন।

সাম্প্রতিক বেশিরভাগ জনমত জরিপেই জাতীয় নির্বাচনে কির স্টারমারের লেবার পার্টিকে ভোটে ক্ষমতাসীন কনজারভেটিভ পার্টির তুলনায় প্রায় ২০ শতাংশ পয়েন্ট এগিয়ে থাকতে দেখা যাচ্ছে।

নতুন আরও কয়েকটি জরিপের ফল বলছে, এক শতাব্দীরও বেশি সময়ের মধ্যে এবারের নির্বাচনে কনজারভেটিভরা সবচেয়ে শোচনীয় হারের মুখে রয়েছে। জেরেমি হান্টের মতো বিশিষ্ট নেতারাও এবার তাদের পার্লামেন্টারি আসন খোয়াতে পারেন।

সুনাক যুক্তরাজ্যে আগাম নির্বাচন ঘোষণা করেছেন আগামী ৪ জুলাই। এ নির্বাচনে এমনকী ওয়েলসে কনজারভেটিভ পার্টির নাম-নিশানা পুরোপুরি মুছে যেতে পারে বলেও পূর্বাভাস পাওয়া যাচ্ছে কয়েকটি জরিপে।

সূত্র: রয়টার্স

যুক্তরাজ্য এর আরও খবর